পরমাণু বোমা প্রস্তুতে পুতিনের নির্দেশের যে জবাব দিল ন্যাটো

|

ন্যাটো প্রধান জেনস স্টোলটেনবার্গ বলেছেন, রাশিয়ার সামরিক বাহিনীকে পরমাণু শক্তিকে প্রস্তুত রাখতে পুতিনের নির্দেশ ‘বিপজ্জনক’ ও ‘দায়িত্বজ্ঞানহীন’।

রোববার (২৭ ফেব্রুয়ারি) তিনি বলেন, ইউক্রেনের ভূমিতে তারা যা করছেন, তার সঙ্গে যদি পুতিনের বক্তব্য মেলান, তাহলেই পরিস্থিতি ভয়াবহতা বুঝতে পারবেন। তার মতে, রাশিয়ার একটি স্বাধীন, সার্বভৌম দেশের বিরুদ্ধে পুরোদমে যুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়েছে।

এদিকে কিয়েভের বাইরে গোস্তোমেল বিমানবন্দরের কাছে ফসফরাসেপূর্ণ গোলাবারুদ ব্যবহার করছে ইউক্রেনের বাহিনী। রোববার (২৭ ফেব্রুয়ারি) রুশ প্রতিরক্ষামন্ত্রী এমন দাবি করেছেন।

তিনি বলেন, জাতিসংঘের কনভেনশন অন প্রহিবিশন অর রেস্ট্রিকশনস অন দ্য ইউজ বা ইনসেন্ডিয়ারি ওয়েপনস অনুসারে এই বোমার ব্যবহার নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

ইউক্রেন ও রাশিয়ার মধ্যে সোমবার বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। রোববার (২৭ ফেব্রুয়ারি) ইউক্রেনের উপ-স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ইভজেনি ইয়ানেন বলেন, স্থানীয় সময় সোমবার সকালে দুই দেশের প্রতিনিধিরা বৈঠকে বসবেন।

প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি বলেন, বেলারুশের প্রেসিডেন্ট আলেক্সান্ডার লুকাশেঙ্কো রোববার সকালের দিকে তাকে ফোন দিয়েছিলেন। এ সময়ে কোনো ধরনের পূর্বশর্ত ছাড়াই ইউক্রেন-বেলারুশের সীমান্তের প্রিপায়েত নদীর কাছে বৈঠকে বসতে রাজি হওয়ার কথা জানানো হয়েছে।

ইউক্রেনের প্রতিনিধিদের ভ্রমণের সময় বেলারুশ ভূখণ্ডের সব বিমান, হেলিকপ্টার ও ক্ষেপণাস্ত্র যে অবস্থায় আছে, সে অবস্থায়ই থাকবে।




Leave a reply