‘দেশে কাঙাল নেই, মানুষের ক্রয়ক্ষমতা বেড়েছে’

|

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, দেশে আর কাঙাল নেই। এখন কেউ না খেয়ে মারা যায় না। কারণ মানুষের আয় ও ক্রয়ক্ষমতা বেড়েছে।

সোমবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে সিরাজগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলনের প্রথম অধিবেশনে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

হাছান মাহমুদ বলেন, এখন গ্রামাঞ্চলে আগের মতো বাসি ভাত পাওয়া যায় না। কেউ মারা গেলে কাঙাল ভোজে লোক আসে না, বড়লোকরাই আসে। এটাই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কারিশমা।

শ্রমিকের দাম বেড়েছে এবং তারা ভালো আছেন উল্লেখ করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, এখন একজন শ্রমিক দিনে ১২-১৫ কেজি চাল কিনতে পারেন। দ্রব্যমূল্যের দাম বৃদ্ধি বড় কথা নয়, বরং ক্রয়ক্ষমতা আছে কি-না সেটাই বড় কথা। কারণ, যখন এক আনায় দুই কেজি চাল পাওয়া যেতো তখনও মানুষ দুর্ভিক্ষে মারা গেছে। কিন্তু এখন মানুষ না খেয়ে মারা যায় না।

হাছান মাহমুদ বলেন, দুঃসময়ের ত্যাগী নেতাকর্মীদের ক্ষমতায় আনা হবে। অর্থ দিয়ে রাজনীতি কে না যাবে না। যারা শ্রম, মেধা ও ত্যাগ দিয়ে রাজনীতি টিকিয়ে রেখেছেন তাদেরকেই ক্ষমতায় আনা হবে, নেতা নির্বাচন করা হবে।

তিনি আরও বলেন, শেখ হাসিনার নেতৃত্বের প্রশংসা এখন বিশ্বনেতারাও করেন। তারা দেশে এসে সবাই তার প্রশংসা করে গেছেন। কারণ বিশ্বনেতারা শেখ হাসিনার উন্নয়ন দেখেন, কিন্তু বিএনপি দেখে না ও প্রশংসা করে না। আরও একটি পক্ষ আছে. যাদের সারাদিন দেখা যায় না কিন্তু মাঝরাতে টিভির পর্দায় দেখা যায়।

বিএনপি নির্বাচনের নাম শুনলেই ভয় পায় মন্তব্য করে হাছান মাহমুদ বলেন, খালেদা জিয়া ও তারেক রহমান সাজাপ্রাপ্ত হওয়ায় নির্বাচনে অংশ নিতে পারবেন না। তাই তারা নির্বাচনও চান না। তারা নির্বাচন ছাড়া মির্জা ফখরুলকে ক্ষমতায় আনতে চায়।

তিনি আরও বলেন, মিথ্যাচার ছাড়া বিএনপি আর কিছুই পারে না। রাজনৈতিকভাবে আত্মবিশ্বাসের সাথে মিথ্যা বলায় অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। এছাড়া একে-অপরকে টপকাতে বিএনপির কেন্দ্রীয় বেশিরভাগ নেতাই মিথ্যাচার করেন।

সিরাজগঞ্জ সরকারি কলেজ মাঠে সম্মেলনের আয়োজন করা হয়েছে। সম্মেলনে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত আছেন কার্যনির্বাহী সদস্য বেগম আখতার জাহান, সদস্য ও সিরাজগঞ্জ-৬ (শাহজাদপুর) আসনের সাংসদ প্রফেসর মেরিনা জাহান কবিতা, নাটোর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল কুদ্দুস।

জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি অ্যাডভোকেট কে এম হোসেন আলী হাসানের সভাপতিত্ব এবং ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মো. আব্দুস সামাদ তালুকদারের সঞ্চালনায় সম্মেলন উদ্ভোধন করেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য আব্দুর রহমান। সম্মেলনে সভাপতি পদে চার জন ও সাধারণ সম্পাদক পদে পাঁচ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।




Leave a reply