এবার বড়পর্দায় নব্বই দশকের ‘শক্তিমান’

|

নব্বইয়ের দশকের ভারতীয় শিশুদের কাছে সুপার হিরো বলতে একটি নাম বেশ জনপ্রিয়। সে সময়ের শিশু-কিশোরদের স্মৃতির অনেকাংশ দখল করে আছে এই চরিত্রটি।

ভারতীয় দূরদর্শন চ্যানেলে প্রচারিত হত ‘শক্তিমান’। প্রতি রবিবার অধির আগ্রহে শো দেখতে বসে যেত কচিকাঁচারা। এমনকি বড়রা বেশ পছন্দ করতো সেই শো।শো টিতে প্রধান চরিত্রের নাম গঙ্গাধর। গঙ্গাধর নামের এক সাধারণ মানুষ, সংবাদপত্রে কাজ যার পেশা। মানুষকে বাঁচাতে মাঝে মধ্যেই নিজের আসলরূপে ফিরে যায় সে, নিজের শক্তিমান রূপে। বিপদের মোকাবেলা করে জীবন বাঁচায় সাধারণের।

ভারতের এই প্রথম সুপারহিরো ‘শক্তিমান’কে ফিরিয়ে আনা হচ্ছে বড় পর্দায়। বৃহস্পতিবার সনি পিকচার্স ইন্ডিয়া ঘোষণা করে এই বিশেষ খবরটি।১৯৯০-এর দশকের জনপ্রিয় এই শো টি বড় পর্দায় আত্মপ্রকাশ করলেও ‘শক্তিমান’র নায়ক হিসেবে দেখা যাবে অন্য কাউকে। কিন্তু কে হচ্ছেন শক্তিমানের নায়ক এখনও নির্দিষ্ট হয়নি।

এ পর্যন্ত ‘কৃশ’, ‘ফ্লাইং জাট’ থেকে শুরু করে ‘মিন্নাল মুরালী’র মত সুপার হিরোরা বড়পর্দায় কিংবা ওটিটি প্ল্যাটফর্মে আত্মপ্রকাশ করেছে সেক্ষেত্রে কেন বাদ থাকবে শৈশবের এই জনপ্রিয় শো টি। আর তাই নব্বই দশকের জনপ্রিয় এই ‘শক্তিমান’ সুপারহিরো কে বড় পর্দায় আনতে চলেছে সোনি পিকচার্স ইন্টারন্যাশনাল প্রোডাকশনস। এর মধ্যেই এর স্বত্ব কিনেছে প্রযোজনা সংস্থা। একটি সিনেমা দিয়ে ‘শক্তিমান’ এর সম্পূর্ণ গল্প তুলে ধরা সম্ভব নয় তাই তিনটি সিনেমাতে এর গল্প তুলে ধরা হবে বলে জানা গেছে।

‘শক্তিমান’ শোটি তে শক্তিমান চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন অভিনেতা মুকেশ খান্না। শোটি প্রযোজনা এবং পরিচালনাও করেছিলেন তিনি। বড় পর্দার সিনেমাটিরও সহ-প্রযোজনা করবেন তিনি।

সোনি পিকচার্স ইন্ডিয়ার অফিসিয়াল টুইটার পেজে এ ব্যাপারে একটি টুইট করা হয়েছে। টুইটে লেখা হয়, ‘ভারত এবং সারা বিশ্বে অনেক সুপারহিরো চলচ্চিত্রের দুর্দান্ত সাফল্যের পরে, এবার দেশি সুপারহিরোর সময় এসেছে।’

নির্মাতারা জানিয়েছেন, ছবিটির শিরোনাম হবে ‘ভারতের একজন সুপারস্টার’। এর মধ্যেই সিনেমাটির টিজারও প্রকাশ করা হয়েছে।




Leave a reply