চা আর সিগারেট একসঙ্গে খাচ্ছেন? অজান্তে কতটা ভয়ঙ্কর ক্ষতি করছে, জেনেনিন

|

গরম চায়ের সাথে ধূমপান করার অভ্যাস রয়েছে অনেকের। দীর্ঘ দিনের এই অভ্যাস যেনো নেশাতে পরিণত হয়েছে অনেকের জীবনে। কাজের ফাঁকে ক্লান্তি দূর করতে প্রাঁই গরম চায়ের সাথে হাতের ফাঁকে জ্বলন্ত সিগারেট নিয়ে থাকেন অনেকে।

কিন্তু অনেকেই হয়তো জানেন না চা আর সিগারেটের এই যুগলবন্দি আপনার স্বাস্থ্যঝুঁকি কতটা বাড়িয়ে তুলতে পারে।

‘অ্যানাল্স অফ ইন্টারনাল মেডিসিন’ নামে চিকিৎসা সংক্রান্ত পত্রিকায় প্রকাশিত গবেষণা বলছে, চা এবং সিগারেট একসঙ্গে খেলে বাড়তে পারে ক্যানসারের ঝুঁকি।

সমীক্ষা বলছে, যে ব্যক্তিরা নিয়মিত ধূমপান এবং মদ্যপান করে থাকেন তাদের ক্ষেত্রে গরম চা পানের অভ্যাস খাদ্যনালীর ক্যানসারের ঝুঁকি বাড়াতে পারে।

তামাক এবং অ্যালকোহল দুটিই ক্যানসারে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি বাড়িয়ে দেওয়ার জন্য যথেষ্ট।
তাই ক্যানসারের মতো মরণ রোগ থেকে নিজেকে সুরক্ষিত রাখতে ধূমপান এবং মদ্যপানের অভ্যাস থেকে দূরে থাকা খুব জরুরি।

আর এই অভ্যাসগুলোর সঙ্গে যদি জোট বাঁধে গরম চা, তাহলে সমস্যা আরও বৃদ্ধি পায়।

ধূমপান যে স্বাস্থ্যের পক্ষে ক্ষতিকারক, এ কথা কারই বা অজানা! এর ক্ষতিকারক প্রভাবের কথা তো প্রচারও হয় নানা ভাবেই। এমনকি, সিগারেটের প্যাকেটেও বিধিবদ্ধ সতর্কীকরণ ছাপা থাকে। কিন্তু ওই পর্যন্তই। ৩১ মে, প্রতি বছর ঘটা করে বিশ্ব তামাক বর্জন দিবস (World No Tobacco Day) পালন করা হয়, কিন্তু তাতেও বিশেষ কোনও পরিবর্তন আসেনি। বেশিরভাগ মানুষই হাতে গরম চায়ের কাপ নিয়ে, ঠোঁটে রাখেন জ্বলন্ত সিগারেট ৷ কিন্তু গবেষণা বলছে, এই ধরণের অভ্যাস বাড়াতে পারে ক্যানসারের ঝুঁকি !




Leave a reply