প্রেসিডেন্ট থাকলে ইউক্রেন যুদ্ধে বিপুল অর্থ আয় করতাম: ট্রাম্প

|

এখন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট থাকলে ইউক্রেন যুদ্ধ পরিস্থিতিকে ব্যবহার করে দেশের জন্য বিপুল পরিমাণ অর্থ উপার্জন করতে পারতাম। মার্কিন নিউজ চ্যানেল ফক্স বিজনসকে দেওয়া এক বিশেষ সাক্ষাৎকারে সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এ কথা বলেছেন।

তিনি দাবি করেন, ইউক্রেনে হামলার কারণে বিশ্বের সব দেশের উচিত রাশিয়ার কাছ থেকে তেল কেনা বন্ধ করে দেওয়া।

ট্রাম্প বলেন, তিনি এখন প্রেসিডেন্ট থাকলে রাশিয়ার তেল বিক্রি বন্ধ করে দিয়ে বিশ্বের সব দেশের কাছে মার্কিন তেল বিক্রি করতেন এবং যুক্তরাষ্ট্রের জন্য বিপুল পরিমাণ অর্থ উপার্জন করতেন।

সাবেক এই মার্কিন প্রেসিডেন্ট আবারও দাবি করেন, তিনি প্রেসিডেন্ট থাকলে রাশিয়া ইউক্রেনে আগ্রাসন চালানোর সাহস পেত না।

গত বৃহস্পতিবার রাশিয়া ইউক্রেনে সামরিক অভিযান শুরু করার পর থেকে ট্রাম্প এ পর্যন্ত একাধিকবার দাবি করেছেন, তিনি এখন আমেরিকার প্রেসিডেন্ট থাকলে ইউক্রেন যুদ্ধ প্রতিহত করতে পারতেন।

ইউক্রেনে রাশিয়ার সামরিক অভিযানের জেরে মস্কোর বিরুদ্ধে এ পর্যন্ত আমেরিকা ও ইউরোপীয় দেশগুলো কয়েক দফা নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে। রাশিয়ার অর্থনৈতিক ও ব্যাংকিং খাত ছাড়াও আন্তর্জাতিক অঙ্গনের বহু খেলাধুলা থেকে রাশিয়াকে বাদ দিয়েছে পশ্চিমা দেশগুলো।

প্রায় দুই মাস ধরে ইউক্রেন সীমান্তে প্রায় ২ লাখ সেনা জড়ো করে রাশিয়া। রাশিয়ার সেনা মোতায়েন নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রসহ পশ্চিমা দেশগুলো বারবার সতর্কতা দিয়েছিল। কিন্তু বরাবরই ইউক্রেনে হামলা চালানোর আশঙ্কা উড়িয়ে দেয় রাশিয়া।

এরপর গত ২৪ ফেব্রুয়ারি রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ইউক্রেনে হামলা চালানোর নির্দেশ দেন। ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় রুশ বাহিনী। ধ্বংস করে বিভিন্ন বিমানঘাঁটি ও গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা। হামলা থেকে বাঁচতে ইউক্রেন থেকে পালাচ্ছে লাখো মানুষ। এরই মধ্যে বেশ কয়েকটি শহরের নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে সেনারা।




Leave a reply